সোমবার, এপ্রিল ১৫, ২০২৪
Homeবিনোদনমরমী কন্ঠ শিল্পী মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জব্বার চির অমলিন

মরমী কন্ঠ শিল্পী মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জব্বার চির অমলিন

মহান বিজয়ের মাস ডিসেম্বর। আনন্দ বেদনার এক মিশ্র অনুভূতিতে এমনিতেই হৃদয়ে  কাপঁন ধরে । আকাশ আরও অনেক বড় হয়। কিন্তু সেদিন হঠাৎ স্তব্দ হয়ে যায় সারা পৃথিবী। সবকিছুই যেন থমকে দাঁড়ায়। লাগে এক অদ্ভুত শিহরণ। নির্বাক দৃষ্টিতে সকলেই একে অপরের দিকে তাকিয়ে ছিলাম, কেউই যেন কিছু বলতে পারছিলাম না। কারণ দিনটি ছিল ০১ ডিসেম্বর ২০০০, শুক্রবার বিকেল  সাড়ে ৪ টা। খবর এলো বীর মুক্তিযোদ্ধা বেতার ও টিভি শিল্পী মরমী কন্ঠ শিল্পী আমাদের প্রিয় আব্দুল জব্বার আর নেই।

চিরদিনের জন্য পৃথিবী ছেড়ে চলে গেছেন তিনি। কিন্তু এত সহজেতো পৃথিবী থেকে বিদায় নেবার কথা ছিল না। চল্লিশশোর্ধ বয়স হলেও স্বভাবে ছিলেন একেবারেই তরুণ। ৩ ছেলে ১ কন্যা সন্তানের জনক আব্দুল জব্বার, কেন্দুয়া ঝংকার শিল্পী গোষ্ঠীর প্রতিষ্ঠাতা সদস্য ছিলেন। তার দেয়া নামাকরণটিই ঝংকার শিল্পী গোষ্ঠী হিসাবে সকলেই গ্রহণ করেছিলাম। তিনি বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কেন্দুয়া উপজেলা কমান্ডের অর্থ কমান্ডার এবং নওপাড়া উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সহ-সভাপতি ছিলেন দুবার।

সদা হাসি মুখ, সরল প্রাণ অসাম্প্রদায়িক ও মুক্তচিন্তার এ মানুষটি অকালেই আমাদের ছেড়ে চলে যাওয়ায় বিষয়টি কেন্দুয়ার সকল শ্রেণি পেশার মানুষকে অনেক কাঁদিয়েছেন। পরদিন ২ ডিসেম্বর বেলা আড়াইটায় নওপাড়া ইউনিয়নের জুড়াইল খেলার মাঠে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা শেষে তাকে চিরনিদ্রা সায়িত করা হয়। প্রয়াত আব্দুল জব্বারের অনেক অনেক স্মৃতি আজও জমা হয়েছে আমাদের মাঝে, ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে মেঠো পথে ও বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কতিক কর্মীদের হৃদয়ে তার গানের সুর।

ঝংকার শিল্পী গোষ্ঠী ছাড়াও সাংস্কৃতিক কর্মীদের হৃদয়ে আকাঁ একটি নাম মরমী কন্ঠ শিল্পী আব্দুল জব্বার। তার অনেক গানের সুর এখনও আমাদের কানে ভেসে আসে। এর মধ্যে পিরিতি রিতি মানে না, সে আমার রক্তে ধোয়া দিন, চেতনায় হানছে আঘাত, মর্জিনারে তোরে আমি ভুলতে পারি না এ রকম অসংখ্য গান।

তাইতো আব্দুল জব্বারকে নিয়ে বাউল কবি এস.এম শহিদুল্লাহ লিখেছেন- ‘আব্দুল জব্বার নামটি প্রচার সঙ্গীত জগতে, গাইবে না সে আর কোন গান আজি হইতে, নিয়তির কি লীলাখেলা বুঝা হল বিষমদায়, আচম্বিতে প্রাণ পাখি তার কোন সদূরে উড়ে যায়’ ইত্যাদি।

মরমী কন্ঠশিল্পী আব্দুল জব্বারের ১৭ তম প্রায়ন দিবস আগামী ১ ডিসেম্বর। এ প্রসঙ্গে কেন্দুয়া উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সাংবাদিক ও শিল্পী সমরেন্দ্র বিশ্বশর্মা বলেন, মরমী কন্ঠ শিল্পী আব্দুল জব্বার ছিলেন সদা হাসিমুখ একজন সরল প্রাণ মানুষ। তার কর্মের জন্যই তিনি আমাদের মাঝে চির অমলিন হয়ে থাকবেন। তিনি আমাদের অনেক প্রেরণা।

নিউজ টাঙ্গাইলের সর্বশেষ খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি অনুসরণ করুন - "নিউজ টাঙ্গাইল"র ইউটিউব চ্যানেল SUBSCRIBE করতে ক্লিক করুন।

- Advertisement -
- Advertisement -