শুক্রবার, এপ্রিল ১২, ২০২৪
Homeদেশের খবরসন্তানসহ গৃহবধুর আত্মহত্যাচেষ্টা, বাঁচাতে গিয়ে মারা গেলেন কলেজছাত্রও

সন্তানসহ গৃহবধুর আত্মহত্যাচেষ্টা, বাঁচাতে গিয়ে মারা গেলেন কলেজছাত্রও

নিজস্ব প্রতিনিধি:গাইবান্ধায় সন্তানসহ রেললাইনে আত্মহত্যা করতে যাওয়া এক গৃহবধুকে বাঁচাতে গিয়ে ট্রেনের ধাক্কায় এক কলেজ ছাত্রসহ দুজনেরই মৃত্যু হয়েছে। এসময় গৃহবধুর হাত থেকে ছিটকে গুরুতর আহত হওয়া সন্তানকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার (১ এপ্রিল) সকাল ১০টার দিকে গাইবান্ধা জেলা শহরের মাঝিপাড়া এলাকার রেল লাইনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত কলেজ ছাত্রের নাম নাজিউল ইসলাম। তার বাড়ি জেলার সাঘাটা উপজেলায় বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। সে গাইবান্ধার বেসরকারি একটি কলেজের এইচএসসি পরিক্ষার্থী ছিলেন। আর ওই গৃহবধুর নাম আয়শা বেগম। তিনি সদর উপজেলার মাঝিপাড়া এলাকার আনোয়ারের স্ত্রী বলে জানা গেছে।

স্থানীয়রা জানান, শিশু সন্তানকে সাথে নিয়ে আত্মহত্যার উদ্দ্যেশ্য ওই গৃহবধু মাঝিপাড়া এলাকার রেললাইনে অপেক্ষা করছিলেন। একপর্যায়ে যখন ট্রেন আসা দেখেও লাইন থেকে সরছিলেন না তিনি। পাশ থেকে বিষয়টি দেখে কলেজ ছাত্র নাজিউল ওই নারীকে লাইনের ওপর থেকে নামানোর চেষ্টা করে। একপর্যায়ে ট্রেন আসলে দুজনকেই ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলে দুজনেরই মৃত্যু হয়।

এসময় ওই নারীর হাতে থাকা দুই বছর বয়সের শিশু সন্তনটি লাইনের বাইরে ছিটকে পড়ে গুরুতর আহত হয়। পরে স্থানীয়রা শিশুটিকে উদ্ধার করে প্রথমে গাইবান্ধা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে বাচ্চাটির অবস্থার অবনতি হলে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায় চিকিৎসকরা।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন বোনারপাড়া (গাইবান্ধা) রেলওয়ের ওসি খাইরুল ইসলাম। জানান, সন্তানসহ গৃহবধুকে বাঁচাতে গিয়ে এক কলেজ ছাত্রসহ দুজনেরই মৃত্যু হয়েছে। ওই নারীর কোল থেকে ছিটকে পড়ে আহত শিশু সন্তানকে চিকিৎসার জন্য রংপুর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে। তদন্ত সাপেক্ষে পরকর্তীতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

নিউজ টাঙ্গাইলের সর্বশেষ খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি অনুসরণ করুন - "নিউজ টাঙ্গাইল"র ইউটিউব চ্যানেল SUBSCRIBE করতে ক্লিক করুন।

- Advertisement -
- Advertisement -