গোপালপুরে চার বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ

 

কে এম মিঠু, গোপালপুর : টাঙ্গাইলের গোপালপুর পৌরশহরের পশ্চিম ডুবাইল গ্রামে মামার বাড়িতে বেড়াতে আসা এক শিশু ধর্ষণের শিকার হওয়ার অভিযোগ পাওয়া গিয়েছে। ধর্ষণ হওয়া শিশুটি পার্শ্ববর্তী ঘাটাইল উপজেলার গৌরাঙ্গী গ্রামের লিটন মিয়ার সন্তান।

থানায় করা মামলার এজহার থেকে জানা যায়, শিশু লিজা খাতুন গত ২ জুন শুক্রবার নানী শেফালী বেগমের সাথে গোপালপুর পৌরশহরের পশ্চিম ডুবাইল মামার বাড়ি বেড়াতে আসে। গত মঙ্গলবার দুপুরে লিজা বাড়ির পাশে এক আম বাগানে খেলতে গেলে একই পাড়ার রহিজ উদ্দীনের ছেলে জহর আলী (১৫) এবং শহিদ আলীর ছেলে ইকবাল হোসেন (১৭) আম বাগানের পাশে বলাই চৌকিদারের বাঁশঝাড়ে নিয়ে তাকে পালাক্রমে ধর্ষন করে। নানী শেফালী বেগম নাতনী লিজাকে দেখতে না পেয়ে খোঁজাখুজি শুরু করলে কান্নারত অবস্থায় আম বাগান থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করে। ঘটনার পর গ্রামের প্রভাবশালী মহল আপোষরফার কথা বলে শিশুটিকে হাসপাতালে না পাঠিয়ে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসার পরামর্শ দেয়।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার দিলরুবা শারমিন গোপন সূত্রে খবরটি জানতে পেরে শিশুটিকে মেডিকেল অফিসারদের দ্বারা মেডিকেল করান এবং ধর্ষণের আলামত পেয়ে শিশুর অভিভাবকদের থানায় পাঠিয়ে মামলা দায়ের করার ব্যবস্থা করান। বুধবার রাতে শিশুর বাবা মো. লিটন মিয়া জহর ও ইকবালকে আসামী করে গোপালপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করে। মামলা নং ০৭ তারিখ ৭ জুন ২০১৭।

তদন্তকারী দারোগা সোহরাব হোসেন জানান,  বৃহস্পতিবার টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ ও জেনারেল হাসপাতালে শিশুটির মেডিক্যাল পরীক্ষা করানোর জন্য পাঠানো হয়েছে। পলাতক আসামীদের ধরতে অভিযান চলছে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.