ব্রেকিং নিউজ :
News Tangail

কাতার বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে নভেম্বর-ডিসেম্বরে

বিশ্বকাপের ইতিহাসে এতদিন যা করা হয়নি, এবার সেটাই করতে যাচ্ছে ফুটবলের অভিভাবক সংস্থা ফিফা। ১৯৩০ সাল থেকে শুরু হওয়া বিশ্বকাপের প্রায় ৮৮ বছর পার হতে চলল। এই ৮৮ বছরে অনুষ্ঠিত হয়ে গেছে ২১টি বিশ্বকাপ আসর। অথচ ২২তম আসরে গিয়ে, ২০২২ বিশ্বকাপে ৮৮ বছরের নিয়ম পরিবর্তন করে দিচ্ছে ফিফা এবং আয়োজক দেশ কাতার। শুক্রবার অনুষ্ঠিত ফিফা কংগ্রেসে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে, ২০২২ কাতার বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে নভেম্বর এবং ডিসেম্বর মাসে। ২১ নভেম্বর শুরু হয়ে টুর্নামেন্ট শেষ হবে ১৮ ডিসেম্বর।

২০২২ বিশ্বকাপের আয়োজক দেশ হিসেবে কাতার যখন নির্বাচিত হয়েছিল, তখন থেকেই সমালোচকদের তীর ছুটে আসতে থাকে ফিফার এই সিদ্ধান্তের দিকে। ফিফার সাবেক প্রেসিডেন্ট সেফ ব্ল্যাটার অনড় ছিলেন তার সিদ্ধান্তে। বর্তমান প্রেসিডেন্ট জিয়ান্নি ইনফ্যান্তিনোও একইভাবে অনড় অবস্থানে।

সমালোচকদের সমালোচনার সবচেয়ে বড় ইস্যু ছিল, জুন-জুলাইয়ে কাতারের উত্তপ্ত আবহাওয়া। খই ফোটানো আবহাওয়ার মধ্যে আর যাই হোক, অন্তত ফুটবল খেলা হবে না। আবহাওয়া নিয়ে তুমুল সমালোচনার শিকার কাতার বিশ্বকাপ আয়োজক কর্তৃপক্ষ। যদিও, কাতারের শেখরা বার বার বলে আসছিলেন, চাইলে তারা পুরো স্টেডিয়ামকেই শীততাপ নিয়ন্ত্রিত করে দেবে।

স্টেডিয়াম না হয়, শীততাপ নিয়ন্ত্রিত করা গেলো; কিন্তু স্টেডিয়ামের বাইরে তো আর পুরো কাতারকে শীততাপ নিয়ন্ত্রিত করা যাবে না! সুতরাং, তীব্র গরমের মধ্যে কীভাবে বিশ্বকাপের আয়োজন করা হবে? এ নিয়ে চলা তুমুল বিতর্কের মধ্যে অনেক আগে থেকেই কথা হচ্ছিল, টুর্নামেন্টের সময় পরিবর্তন করা যায় কি না- সে ব্যাপারে। জুন-জুলাইয়ের পরিবর্তে টুর্নামেন্ট নভেম্বর-ডিসেম্বরে নিয়ে যাওয়া যায় কি না- সে সম্ভাবনা নিয়েও পক্ষে-বিপক্ষে আলাপ-আলোচনা চলছিল।

শেষ পর্যন্ত ফিফা সিদ্ধান্তই নিয়ে ফেললো, নভেম্বর-ডিসেম্বরে বিশ্বকাপ আয়োজন করার। ফিফার এই সিদ্ধান্তের ফলে ওলট-পালট হয়ে যাবে ক্লাব পর্যায়ের লিগ এবং টুর্নামেন্টগুলোর সূচি। এখন নতুন করে ক্লাবগুলোকে ২০২২-২৩ মৌসুমের সূচি নির্ধারণ করতে হবে।

ফিফা প্রেসিডেন্ট জিয়ান্নি ইনফ্যান্তিনো শুক্রবার মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে এক জনাকীর্ণ সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানিয়ে বলেন, ‘বিশ্বকাপের সূচি নির্ধারণ করা হয়ে গেছে। ২০২২ সালে কাতারে এই টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে ২১ নভেম্বর থেকে ১৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত।’

তাহলে ফুটবল লিগগুলোর কি হবে? এ প্রশ্নের জবাবে ইনফ্যান্তিনো বলেন, ‘লিগগুলোকে ইতিমধ্যেই জানিয়ে দেয়া হয়েছে। সুতরাং, এখন তাদেরকে সেভাবেই সূচি তৈরি করতে হবে।’

দিন শেষে এটাকেই সেরা সিদ্ধান্ত বলে রায় দিলেন ইনফ্যান্তিতো। তিনি বলেন, ‘শেষ পর্যন্ত এটা সেরা সিদ্ধান্ত। নভেম্বর-ডিসেম্বরে খেলোয়াড়রা জুন-জুলাই থেকে অনেক বেশি প্রস্তুত থাকে। কারণ, ওই সময়টা প্রায় মৌসুমের শুরু হয়।

২০২৬ বিশ্বকাপ থেকেই শুরু হবে নতুন ফরম্যাটের বিশ্বকাপ। তখন থেকে বিশ্বকাপে খেলবে ৪৮ দল। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, মেক্সিকো এবং কানাডা- এক সঙ্গে তিন দেশ ২০২৬ বিশ্বকাপের আয়োজক। এর অর্থ হলো, ২০২২ কাতার বিশ্বকাপই হতে যাচ্ছে, ৩২ দলের সর্বশেষ বিশ্বকাপ।

যদিও ইনফ্যান্তিনো জানিয়েছেন ২০২২ বিশ্বকাপেও পরিবর্তন হতে পারে ফরম্যাট। ৪৮ দলের সম্ভাবনা রয়েছে কাতার বিশ্বকাপ থেকেও। আগামী কয়েক মাসের মধ্যে কাতারি আয়োজক কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে ফিফা।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.