ব্রেকিং নিউজ

মির্জাপুরে সেতুর মাঝামাঝি পিলারটি ভেঙ্গে পড়ায় দূর্ভোগে দুই উপজেলাবাসী

নিউজ টাঙ্গাইল ডেস্ক: টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার হাটফতেহপুর-পারদিঘী-কাঞ্চনপুর সড়কের হাটফতেপুর উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন খালের ওপর পাকা সেতুটির মাঝামাঝি পিলারটি ভেঙ্গে পড়ায় যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে চরম দুর্ভোগের শিকার হচ্ছেন দুই উপজেলাবাসী।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্রছাত্রী ছাড়াও দুই উপজেলার হাজার হাজার লোকজন কয়েক মাইল ঘুরে দুই উপজেলার সঙ্গে যাতায়াত করছেন। ফতেহপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আব্দুর রউফ জানান, গত নভেম্বরের শেষ সপ্তাহে হাটফতেহপুর-কাঞ্চনপুর-পারদিঘী রাস্তায় হাটফতেহপুর উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন খালের উপর প্রায় ৫০ মিটার দীর্ঘ পাকা সেতুটির মাঝখানের পিলারসহ সেতুটি হঠাৎ ভেঙ্গে পরে।

সেতুটি ভেঙ্গে পড়ায় যোগাযোগের ক্ষেত্রে মির্জাপুর উপজেলা ও পার্শ্ববর্তী বাসাইল উপজেলাসহ আশপাশের পারদিঘী, চরপাড়া, সুতানরী, ফতেহপুরসহ ৩০-৪০টি গ্রামের হাজার হাজার মানুষ যোগাযোগের ক্ষেত্রে চরম দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন। তিনি জানান, সেতুটির পাশে হাটফতেহপুর বৃহৎ হাট ও বাজার, মহেড়া পুলিশ ট্রেনিং সেন্টার, হাট ফতেহপুর উচ্চ বিদ্যালয়, হাটফতেহপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ইউনিয়ন পরিষদ, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র, ইউনিয়ন ভূমি অফিস, আদাবাড়ি মোকছেদ আলী উচ্চ বিদ্যালয়, থলপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পারদিঘি মাদ্রাসাসহ গুরুত্বপূর্ণ অনেক প্রতিষ্ঠান রয়েছে। অথচ ভেঙ্গে যাওয়া সেতুটি দ্রুত সংস্কার ও নতুনভাবে নির্মিত না হওয়ায় যোগাযোগের ক্ষেত্রে এলাকাবাসীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরিফুর রহমান বলেন, ‘ভেঙ্গে পড়া সেতুটি নতুনভাবে নির্মাণের জন্য মাটি পরীক্ষা ও ডিজাইনসহ প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ চেয়ে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে চিঠি পাঠানো হয়েছে। বরাদ্দ পাওয়া মাত্র সেতুটির নির্মাণ কাজ দ্রুত শুরু করা হবে।’

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.