ব্রেকিং নিউজ

মির্জাপুরে নদীর গতিপথ সচল করলেন ইউএনও

নিউজ টাঙ্গাইল ডেস্ক: গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশে টাঙ্গাইল মির্জাপুরের কোট বহুরিয়া এলাকা দিয়ে প্রবাহিত লৌহজং নদীর উপর অবৈধভাবে নির্মিত মাটির বাঁধ ধ্বংস করে নদীর গতিপথ সচল করে দিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল মালেক। গতকাল ঘাটাইলডটকম সহ গণমাধ্যমে ‘মির্জাপুরের লৌহজং নদীতে বাঁধ দিয়ে চলছে ট্রাক’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হয়।

মঙ্গলবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালিয়ে ওই বাধ ধ্বংস করা হয় বলে জানা গেছে।

জানা গেছে, একটি প্রভাবশালী মহল ওই এলাকার নদীতে বাধ দিয়ে দীর্ঘদি যাবত অবৈধভাবে মাটির ব্যবসা করে আসছিল। এতে ওই নদীতে নৌ যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যাওয়ার পাশাপাশি পানি প্রবাহের স্বাভাবিক গতি যেমন ব্যহত হচ্ছিল, ক্ষতি হচ্ছিল কৃষি কাজ, বাধাগ্রস্থ হচ্ছিল মাছের স্বাভাবিক প্রজনন।

মঙ্গলবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) দুপুরের ভ্রামমান আদালত অভিযান পরিচালনার মাধ্যমে ওই নদীতে নির্মিত তিনটি বাঁধ ধ্বংস করে নদীর গতিপথ সচল করতে প্রধান ভুমিকা রাখেন মির্জাপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল মালেক।

এছাড়া একই সময় পরিবেশ অধিদপ্তরের সমন্বয়ে পরিচালিত এই অভিযানে কাঠ দিয়ে ইট পোড়ানোর দায়ে হাকিম ব্রিকস ও স্টাইল ব্রিকস নামের দুটি ইট ভাটাকে ২ লাখ করে মোট ৪ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

এ ব্যাপারে মির্জাপুর উপজেলা নির্বাহি অফিসার আবদুল মালেক জানান, পরিবেশের বিপর্যয় ঘটিয়ে ও নদীর মাটি অবৈধভাবে লুটকারিদের বিরুদ্ধে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে। ফেব্রুয়ারী মাসের উপজেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী নতুন করে মির্জাপুরে আর কোন ইটভাটার অনুমতি দেয়া হবেনা বলে তিনি বলেন।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.