মাভাবিপ্রবিতে র‌্যাগিংকারীদের আজীবন বহিষ্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিনিধি :টাঙ্গাইলে মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে র‌্যাগিংয়ের নামে বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের ১ম বর্ষের শিক্ষার্থী রানাকে মারধর ও ফাহিমের হাত ভেঙে দেওয়ার ঘটনায় দোষীদের আজীবন বহিষ্কারের দাবিতে বিক্ষোভ করছে বিক্ষুদ্ধ সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

আজ রবিবার সকাল থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের ১ম বর্ষের শিক্ষার্থীরা এই কর্মসূচি পালন করে।

এসময় শ্লোগানে শ্লোগানে দোষীদের শাস্তির দাবি জানান শিক্ষার্থীরা। এতে ওই বিভাগের সকল শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

এরআগে শনিবার দুপুরে বিভাগের চেয়ারম্যান সহযোগী অধ্যাপক ড. মোঃ খাইরুল ইসলাম এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. মোঃ সিরাজুল ইসলামের কাছে একটি অভিযোগ করে। কিন্তু এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষের কোন প্রদক্ষেপ না নেওয়ার বিক্ষুদ্ধ হয়ে পড়ে শিক্ষার্থীরা।

আহত শিক্ষার্থীরা জানায়, আমরা আমাদের বিভাগের বন্ধু বান্ধবদের নিয়ে সোসাল মিডিয়া ফেসবুকে একটি গ্রুপ চালু করি। সেই গ্রুপে আমরা মজা করি। আর এই মজার বিষয় নিয়ে সিনিয়ার বড় ভাইয়েরা আমাদের ডেকে নিয়ে মারধর করতে থাকে। এক পর্যায়ে মারতে মারতে আমার হাত ভেঙ্গে ফেলে। তারপরও তারা আমাদের মারতে থাকে। পরে আমাদের শিবির বলে আক্ষায়িত করে যাতে কেউ এর বিচার না করে।

এবিষয়ে মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর সিরাজুল ইসলাম বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে র‌্যাগিং জিরো টলারেন্স। গতকাল র‌্যাগিং এর বিষয়ে একটি অভিযোগ পেয়েছি। যদি কেউ এ ধরনের কাজে জড়িত থাকে তবে প্রমান সাপেক্ষে তাকে সাময়িক বহিষ্কার করা হবে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.