ব্রেকিং নিউজ

সখীপুরে গাছ চোরাদের হামলায় চার এলাকাবাসী আহত; থানায় মামলা

এম সাইফুল ইসলাম শাফলু: টাঙ্গাইলের সখীপুরে বনের গাছ চোরাদের হামলায় চার এলাকাবাসী গুরুতর আহত হয়েছেন। বুধবার বিকেলে উপজেলার বহুরিয়া ইউনিয়নের কালিদাস বল্যা চালা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে আহতদের উদ্ধার করে সখীপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় হামলাকারীদের বিরুদ্ধে সখীপুর থানায় মামলা করেছেন এলাকাবাসী।

জানা যায়, হতেয়া রেঞ্জের কালিদাস বিটের আওতাধীন কালিদাস মৌজার বল্যাচালা এলাকায় সি এস ১৫৩/ ৩০৭৪ দাগের বন বিভাগের বিশাল এলাকা জুড়ে শাল-গজারির বন রয়েছে। বুধবার বিকেলে ওই এলাকার তোয়াজ উদ্দিনের কাছ থেকে গোপনে ক্রয়কৃত শাল গজারি গাছ কাটতে যান স্থানীয় ব্যবসায়ী আজাহার উদ্দিন ও তার লোকজন। খবর পেয়ে হতেয়া রেঞ্জ কর্মকর্তা মো. ওয়াদুদুর রহমান ও কালিদাস বিট কর্মকর্তা এমরান আলী বন বিভাগের জমির কর্তনকৃত ৫০টি শাল-গজারি গাছ জব্দ করেন।

পরবর্তীতে বন বিভাগের লোকজনকে খবর দেওয়া হয়েছে এই অভিযোগে বল্যাচালা গ্রামের মৃত হাজী আনছের আলীর ছেলে নিজাম উদ্দিন ( ৪০) তাঁর স্ত্রী হালিমা আক্তার (৩৫) বড় ভাই মো.আবু জাফর (৪৮) এবং একই এলাকার হাজী বক্তার আলীর ছেলে হায়দার আলীকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে গাছ চোরারা। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে তাদেরকে সখীপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। এ ঘটনায় ওইদিন রাতেই আহত হায়দার আলী বাদী হয়ে হামলাকারী ওই এলাকার রোমেজ উদ্দিনের ছেলে আরিফ হোসেনসহ চারজনকে আসামি করে সখীপুর থানায় মামলা করেন।

মামলার বাদী মো. হায়দার আলী বলেন- বিট কর্মকর্তাকে খবর দেওয়া হয়েছে এমন সন্দেহে গাছ চোরারা আমাদের ওপর হামলা চালায়।
কালিদাস বিট কর্মকর্তা মো. এমরান আলী বলেন- বন বিভাগের শাল-গজারি গাছ কাটার অভিযোগে বন আইনে মামলা হয়েছে। কর্তনকৃত গাছগুলো জব্দ করা হয়েছে ।

গাছ বেপারী মো. আজাহার উদ্দিন বলেন -আমি ওই জমির মালিক তোয়াজ উদ্দিনের কাছ থেকে ৩ লক্ষ ৮০ হাজার টাকায় শাল-গজারি বন ক্রয় করেছি। বুধবার বিকেলে গাছ কাটতে এলে স্থানীয় বন বিভাগ নিষেধ করে। পরে আমি আমার লোকজন নিয়ে চলি আসি।
সখীপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ওমর ফারুক বলেন- এ ঘটনায় অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত পূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.