ব্রেকিং নিউজ

সখীপুরে ২ দশমিক ২৩ একর জমি দখলমুক্ত করল প্রশাসন

নিজস্ব প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের সখীপুরে জেলখানা মোড়ে সরকারি খাস জমিতে অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদ করা হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার বিকেলে এ উচ্ছেদ অভিযান চলে। এ অভিযানে অবৈধ দখলদারদের ১৫টি দোকান, একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশার স্টেশন ও একটি মাইক্রোবাস স্টেশন উচ্ছেদ করা হয়। এ উচ্ছেদ অভিযানের মধ্য দিয়ে দুই একর ২৩ শতাংশ সরকারি খাস জমি দখলমুক্ত করল উপজেলা ভূমি প্রশাসন। অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আয়শা জান্নাত তাহেরা।

স্থানীয় ভূমি কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলা জেলখানা মোড় এলাকায় কমপক্ষে ২০ বছর ধরে সরকারি খাসজমিতে স্থানীয় লোকজন একটি বাজার বসিয়েছেন। এছাড়া একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশার স্টেশন ও আরেকটি মাইক্রোবাস টার্মিনাল গড়ে উঠে। এসব স্টেশনে চাঁদাবাজির অভিযোগও রয়েছে। গত বৃহস্পতিবার উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আয়শা জান্নাত তাহেরার নেতৃত্বে একদল শ্রমিক এ উচ্ছেদ অভিযানে অংশ নেয়। এ সময় ওইস্থানে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার জন্য পুলিশ বাহিনি মোতায়েন ছিল।

অভিযানে একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশার স্টেশন ও একটি মাইক্রোবাস স্টেশন উচ্ছেদ করা ছাড়াও মেছের আলীর মাংসের দোকান, মনির হোসেনের ফলের দোকান, রঞ্জিত দাস, হিরু মিয়া, সানোয়ার হোসেন, পারভীন আক্তার, মিস্টার মওলা, আবু সাঈদ, আমিনুর রহমানের সবজির দোকান, মোস্তফা কামালের পানের দোকান, মানিক মিয়ার টিভির দোকান, বাবুল হোসেন, আছির উদ্দিন ও খলিলুর রহমানের চায়ের দোকানসহ ১৫টি দোকানঘর উচ্ছেদ করা হয়।

ফলের দোকানদার মনির হোসেন বলেন, আমি কমপক্ষে ১০ বছর ধরে এ বাজারে চাঁদা দিয়ে দোকান করছি। সরকারি সিদ্ধান্ত হলে আমাদের কি করার আছে। আমরা সরকারের কাছে আমাদের পুনর্বাসন দাবি করছি।

উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আয়শা জান্নাত তাহেরা বলেন, সরকারি খাস জমিতে অবৈধভাবে দখলদারদের উচ্ছেদ করে সরকারের দুই একর ২৩ শতাংশ জমি দখলমুক্ত করা হলো। এছাড়া সিএনজিচালিত অটোরিকশা ও মাক্রোবাস স্টেশন উচ্ছেদ হওয়ায় এখন চাঁদাবাজিও বন্ধ হয়ে যাবে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.