ব্রেকিং নিউজ

টাঙ্গাইলে কোরবানির মহিষের তান্ডবে আহত ১১

রেজাউল করিম খান রাজু, ঘাটাইল প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে কোরবানির জন্য প্রস্তুতের সময় লাফিয়ে উঠে ১১ জনকে আহত করেছে একটি মহিষ। পরে মহিষটিকে নিয়ন্ত্রণে আনতে এক রাউন্ড গুলিও ছুড়ে ভুঞাপুর থানা পুলিশ। তবে পুলিশের ছোড়া গুলি লাগেনি মহিষের গায়ে। আজ সোমবার (১২ আগস্ট) সকালে ঘাটাইল উপজেলার যুগিহাটি গ্রামের আরিফুল সরকারের বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, ঈদ উপলক্ষে যুগিহাটি গ্রামের আরিফুল সরকারের বাড়িতে একটি মহিষ কয়েকজন মিলে কোরবানি দেওয়ার জন্য কিনেছিলেন। কোরবানি দেওয়ার সময় হঠাৎ লাফিয়ে উঠে। পরে সেখানে থাকা একই পরিবারের পাঁচজনসহ ১১ জনকে আহত করে মহিষটি ভুঞাপুর উপজেলার কাগমারি পাড়ায় চরে চলে যায়।

তবে মহিষটি নিয়ন্ত্রণে ঘাটাইল থানার পুলিশ কোনো উদ্যোগ না নেওয়ায় মহিষটি ভুঞাপুর অংশে চলে যায়। পরে ভুঞাপুর থানা পুলিশ মহিষটিকে লক্ষ করে গুলি ছুড়লে সেটি মহিষের গায়ে লাগেনি।

ভুঞাপুর থানার উপ-পরিদর্শক টিটু চৌধুরী জানান, ভুঞাপুর উপজেলার ইউএনও ঝোটন চন্দের নির্দেশে ক্ষিপ্ত ঐ মহিষটিকে লক্ষ করে এক রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়। এতে মহিষটি সরে গেলে গুলি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়।
ততক্ষণে মহিষটিকে দেখতে আশপাশের হাজারোও উৎসুক মানুষ চলে আসে। এতে পুনরায় ফায়ারিং করা সম্ভব হয়নি মানুষের নিরাপত্তার বিষয়টি চিন্তা করে।

বার বার উৎসুক জনতাকে সেখান থেকে সরাতে মাইকিং করা হলেও তারা কোনো কর্ণপাত করছে না। রাত ৮টা পার হলেও মহিষটিকে নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়নি। তবে মহিষটি প্রায় তিন ঘণ্টা যাবৎ একই স্থানে দাঁড়িয়ে রয়েছে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.