ব্রেকিং নিউজ

টাঙ্গাইলের সাইফুল ইসলাম সেরা “কিশোর ফ্রীল্যান্সার অ্যাওয়ার্ড ২০১৯” পেয়েছেন

নিজস্ব প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের মধুপুরের মাত্র ১৫ বছর বয়সেই সাইফুল ইসলাম একজন সফল ফ্রিল্যান্সার। ফ্রিল্যান্সিং বা আউটসোর্সিং বাংলাদেশের জন্য একটি সম্ভাবনাময় পেশা। ফ্রিল্যান্সিং আর ইচ্ছাশক্তির মাধ্যমে যে কেউ তার ভাগ্যের চাকা ঘুরাতে পারেন। আর ঠিক সে ভাবেই ভাগ্যের চাকা ঘুরিয়েছেন মো. সাইফুল ইসলাম। নিজের লেখাপড়ার খরচ এবং পরিবারের আর্থিক চাহিদা মিটিয়ে এখন পরিবারের সকলের আদরের সাইফুল ইসলাম। তিনি টাঙ্গাইল জেলার মধুপুর উপজেলার বেরীবাইদ ইউনিয়নের ফইটামারী গ্রামের শাজাহান আলীর ছেলে এবং আউশনারা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্র।

তিনি ওয়েব ডেভেলপমেন্ট ও ডিজাইন, এসইও, গ্রাফিক্স, লোগো ডিজাইন, ভেক্টর, প্রোট্রেইট ডিজাইন , ব্লগে লেখালেখির কাজ করে থাকেন। তিনি খুবই অল্প বয়সেই অনেকদূর পথ এগিয়ে গিয়েছেন ফ্রীল্যান্সিং এর। ইতোমধ্যে তিনি বিভিন্ন কোম্পানির শ্রদ্ধার পাত্র হিসেবে স্থান করে নিয়েছেন । তিনি আউশনারা উচ্চ বিদ্যালয় এর দশম শ্রেণির বিজ্ঞান শাখার একজন ছাত্র। সেরা ” কিশোর ফ্রীল্যান্সার অ্যাওয়ার্ড ২০১৯ ” পাওয়ার তথ্য জানানো হলে আমি নিউজ টাঙ্গাইল এর পক্ষ থেকে সাইফুল ইসলাম এর সাথে এবং আউশনারা উচ্চ বিদ্যালয় এর শিক্ষক ও স্থানীয় লোকদের সাথে দেখা সাক্ষাৎ করি । Intern AB Consultency Ltd এর পক্ষ থেকে ” কিশোর ফ্রীল্যান্সার এওয়ার্ড ২০১৯ ” পাওয়ার ব্যাপারে সাইফুলের সম্পর্কে আউশনারা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক রুবেল সরকার বলেন, শিক্ষক হিসেবে আমি দেখেছি, সে সবার থেকে আলাদা এবং বিশেষ মেধার অধিকারী। ক্লাসে মনযোগী। তার সৃজনশীল কাজ আমাকে মুগ্ধ করে।আমি বিশ্বাস করি, তার মেধা ও কাজ তাকে বহুদূর নিয়ে যাবে।

আউশনারা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক নজরুল ইসলাম বলেন, সাইফুল একজন ভালো ও মেধাবী ছাত্র। ভবিষ্যতে সে একজন উচ্চতম পদে যেতে পারবেন। তার জন্য শুভকামনা রইলো।

নিউজ টাঙ্গাইল এবং সাইফুল এর মধ্যে কথোপকথনটি নিম্নে তুলে ধরা হলো ;

নিউজ টাঙ্গাইল : আপনি যে সেরা ” কিশোর ফ্রীল্যান্সার অ্যাওয়ার্ড ২০১৯” পেয়েছেন আপনার কেমন লাগছে?

সাইফুল ; জ্বী, আলহামদুলিল্লাহ। অবশ্যই অনেক ভালো লাগছে। আমি এইরকম একটা পুরস্কার এর জন্য অপেক্ষায় ছিলাম । অবশেষে পেয়ে গেলাম খুবই ভালো লাগছে।

নিউজ টাঙ্গাইল : আপনার এই পুরস্কারটি পাওয়ার পিছনে কি বিষয়টি কাজ করছে?

সাইফুল : অধ্যবসায়, কঠোর পরিশ্রম, ধৈর্য্য এগুলোর সমন্বয় এর মাধ্যমেই আমি এই পজিশন এ আসতে পেরেছি।

নিউজ টাঙ্গাইল: আপনার মতো প্র‍ত্যন্ত অঞ্চলে সফল ফ্রীল্যান্সার বের হয়ে আসতে তাদেরকে কিরকম পরামর্শ দিবেন?

সাইফুল : ফ্রীল্যান্সিং ও আউটসোর্সিং এর কাজ করতে মার্কেটপ্লেসে আসার পূর্বশর্ত হচ্ছে আইডিয়া। যার মাধ্যমে বায়ারকে খুব সহজেই আকৃষ্ট করা যায়। তাই ভালোভাবে কাজ শিখুন। নিজেকে দক্ষ হিসেবে গড়ে তুলুন।

নিউজ টাঙ্গাইল: আপনি আরও কিছু বলবেন?

সাইফুল : আমার জন্য সবাই দোয়া করবেন। আমি ২০২০ সালে বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এস.এস.সি পরীক্ষা দিবো। আমার জন্য সবাই প্রাণখুলে দোয়া করবেন ।

নিউজ টাঙ্গাইল : আপনার ভবিষ্যৎ জীবন সুন্দর ও কল্যানময় হোক এই শুভকামনা রইলো আপনার জন্য।

সাইফুল ইসলাম একজন অসাধারণ ফ্রীল্যান্সার এ পরিণত হয়েছেন। তিনি প্রত্যন্ত অঞ্চলে বসবাস করেও একজন সফল ফ্রীল্যান্সারে পরিণত হয়েছেন।

তার সংক্ষিপ্ত পরিচয় :

নাম : মো. সাইফুল ইসলাম

পিতার নাম: শাজাহান আলী

মাতার নাম: সাজেদা বেগম

প্রতিষ্ঠানের নাম : আউশনারা উচ্চ বিদ্যালয়

ঠিকানা : গ্রাম : ফইটামারী, ইউনিয়ন : বেরীবাইদ, উপজেলা: মধুপুর, জেলা: টাঙ্গাইল ।

WhatsApp/Imo/Contact: 01733437596

Facebook: www.facebook.com/NetBDBossSaiful

Facebook: www.facebook.com/Saiful.Official.NetMaster

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.