ব্রেকিং নিউজ

টাঙ্গাইলে করোনা সন্দেহে মৃত জাহাঙ্গীর উকিলের দাফন ইসলামী ফাউন্ডেশনের তত্ত্বাবধানে সম্পন্ন

নিউজ টাঙ্গাইল ডেস্ক: টাঙ্গাইলে করোনা সন্দেহে মৃত ইসলামী ফাউন্ডেশনের তত্ত্বাবধানে জাহাঙ্গীর উকিলের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। স্বাস্থ্য বিভাগ করোনায় মৃত্যু সন্দেহ করায় সরকারি নিয়ম মাফিক ইসলামী ফাউন্ডেশনের তত্বাবধানে টাঙ্গাইল জেলা পরিষদের সদস্য, গোপালপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক, উপজেলার নগদাশিমলা ইউনিয়নের বাদে মাকুল্যা গ্রামের মৃত আব্বাস আলী খানের ছেলে, অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম খানের দাফন সম্পন্ন করা হয়।

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ জানায়, অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম (৫৫) সোমবার (৬ এপ্রিল) ভোর রাতে নিজ বাড়িতে মারা যান। তার সর্দিজ্বরসহ কাশি ছিল। করোনার লক্ষণ থাকায় তার শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট পাওয়ার পর জানা যাবে তিনি প্রকৃতই করোনায় আক্রান্ত হয়ে ছিলেন কিনা।

উপজেলা প্রশাসন জানান, স্বাস্থ্য বিভাগ যেহেতু মৃতব্যক্তির শরীরে করোনার লক্ষণ বা উপসর্গ সন্দেহ করছেন, তাই রাষ্ট্রের এ দুর্যোগকালে সরকারি নির্দেশ মেনে ইসলামী ফাউন্ডেশনের তত্বাবধানে তাকে দাফন করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

এদিকে বাদ আসর নিজ বাড়িতে জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তাঁকে দাফন করা হয়। সরাসরি জানাযায় উপস্থিত না হলেও, গ্রামবাসী ও দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে মরহুমের বাড়ি সংলগ্ন রাস্তায় দাঁড়িয়ে মোনাজাতে অংশ গ্রহণ করেন, টাঙ্গাইল-২ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য জনাব ছোট মনির। এসময় উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জনাব মো. হালিমুজ্জামান তালুকদার, সাধারণ সম্পাদক জনাব মো. সাইফুল ইসলাম তালুকদার সুরুজ প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম টাঙ্গাইল জেলা আদালতে দীর্ঘদিন ধরে আইন পেশায় নিয়োজিত ছিলেন। গত বছর তিনি টাঙ্গাইল জেলা পরিষদের (গোপালপুর উপজেলা) সদস্য নির্বাচিত হন। করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে সরকারের সিদ্ধান্তে অফিস-আদালত বন্ধ হওয়ায়, গত ১৭ মার্চ থেকে তিনি নিজ গ্রাম গোপালপুর উপজেলার নগদাশিমলা ইউনিয়নের বাদে মাকুল্লা গ্রামে অবস্থান করছিলেন।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.