মানসিক ভারসাম্যহীন ছেলের হাতে মা খুন

গাজীপুরের শ্রীপুরে মানসিক ভারসাম্যহীন ছেলের হাতে মা রেহেনা খাতুন (৪০) খুন হয়েছে। নিহত রেহেনা ওই গ্রামের আনোয়ার হোসেনের স্ত্রী। এ ঘটনায় পুলিশ ছেলে ইয়াসীন আরাফাত (১৬) গ্রেফতার হয়েছে। বুধবার উপজেলার কাওরাইদ ইউনিয়নের সোনাব (পশ্চিম পাড়া) গ্রামে নিজেদের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

কাওরাইদ ইউপি সদস্য আশরাফুল ইসলাম ঢালী জানান, রেহেনা খাতুন সকালে বাড়ির উঠানে রোদে ধান শুকাচ্ছিলেন। এসময় ছেলে ইয়াসীন আরাফাত তার মায়ের কাছে একটি ধারালো দা চায়। দা চাওয়ার কথা মা তাকে জিজ্ঞাসা করলে সে বলে গাছ থেকে ডাব পেড়ে খাবে। তাকে মা দা এনে দিয়ে ধান শুকানোর কাজে লেগে যায়। এসময় ছেলে ইয়াসীন পেছন দিক থেকে তার মায়ের ঘাড়ে দা দিয়ে কোপ দিলে রেহেনা খাতুন মাটিতে পড়ে যায়। পরে সে দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে তার মাকে খুন করে।

ইউপি সদস্য আরও জানান, ইয়াসীন আরাফাত বলদীঘাট জে এম সরকার উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। তবে কিছুদিন  মানসিক ভারসাম্যহীন আচরণ করছিল সে। স্থানীয়রা তাকে আটক করে শ্রীপুর থানা পুলিশের হাতে সোপর্দ করেছে।

এ হত্যার ঘটনার পর ইয়াসীন আরাফাত নামের ওই কিশোর জানায়, মায়ের আত্মার শান্তি কামনায় তাকে খুন করেছে সে। তবে মা মারা যাওয়ায় তার খারাপ লাগছে।
শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, অভিযুক্ত ছেলে ইয়াসীন আরাফাতকে গ্রেফতার করা হয়েছে। নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজ উদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

নিউজ টাঙ্গাইলের সর্বশেষ খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি অনুসরণ করুন - "নিউজ টাঙ্গাইল"র ইউটিউব চ্যানেল SUBSCRIBE করতে ক্লিক করুন।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.