বাসাইলে একযুগ পর পুরুষ ইউএনও’র যোগদান

নিউজ টাঙ্গাইল ডেস্কঃ টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলায় প্রায় একযুগ পর পূরুষ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) হিসেবে যোগদান করেছেন মনজুর হোসেন। বুধবার (১০মার্চ) তিনি বাসাইল উপজেলার পঁচিশতম ইউএনও হিসেবে যোগদান করেন। এর পূর্বে মনজুর হোসেন মানিকগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সিনিয়র সহকারি কমিশনারের দায়িত্ব পালন করেন।

২০০৯ সালে নাজনীন হোসেন বাসাইলের ইউএনও হিসেবে দ্বায়িত্বভার গ্রহনের পর ধারাবাহিকভাবে এই উপজেলায় নারী ইউএনওরাই দ্বায়িত্ব পালন করেছেন। সবশেষে নুসরাত জাহান প্রায় আড়াইমাস দ্বায়িত্ব পালনের সময় তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগের প্রেক্ষিতে উনাকে অন্যত্র তার বদলী হয়। এতে করে দীর্ঘ প্রায় একযুগ পর বাসাইল উপজেলাবাসী এবার একজন পুরুষ ইউএনও পেলেন।

পুরুষ ইউএনও যোগদানের সংবাদ ছড়িয়ে পড়লে বাসাইলের বিভিন্ন পেশাজীবী,যুবসমাজের মাঝে এবং চায়ের দোকানের আড্ডায় এই বিষয় নিয়েই আলোচনা চলছে। অনেকেই স্বস্তীপ্রকাশ করে মন্তব্য করছেন অভাব অভিযোগ বা যেকোন প্রশাসনিক কাজে এখন অন্তত দুইজন দারোয়ান পার হয়ে পুরুষ ইউএনও স্যারের সাথে দেখা করতে যেতে হবেনা।

নবাগত ইউএনও মনজুর হোসেন রাজবাড়ি জেলার পাংশা উপজেলার কৃতিসন্তান। আবাসপুর ইউনিয়নের কাচারী পাড়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে এসএসসি, পাংশা সরকারী কলেজ থেকে উচ্চমাধ্যমিক পাশ করেন এবং তারই ধারাবাহিকতায় কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে অনার্স এবং মাষ্টার্স শেষ করে ৩৩তম বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ন হয়ে সরকারী কর্মকর্তা হিসেবে যোগদান করেন।

বাসাইলে নবাগত এই নির্বাহী কর্মকর্তা মনজুর হোসেন বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত উপজেলা পর্যায়ের সকল উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড অবশ্যই সফলভাবে সম্পন্ন করবো। একটি আধুনিক ও সমৃদ্ধ বাসাইল গড়ে তোলা আমার পবিত্র দায়ীত্ব। এছাড়া বাসাইল উপজেলায় বাল্যবিবাহ, মাদক, ইভটিজিংসহ বিভিন্ন প্রকারের অপরাধ কঠোরভাবে দমন করা হবে। এসব কাজে উপজেলার সচেতন নাগরিক, বিভিন্ন পেশাজীবির মানুষ, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, সাংবাদিকসহ সকলকে আমি পাশে নিয়ে কাজ করতে চাই।

"নিউজ টাঙ্গাইল"র ইউটিউব চ্যানেল SUBSCRIBE করতে ক্লিক করুন।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.